যবিপ্রবিতে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন

যশোর জেলার খবর

যশোর অফিস : নানা আয়োজনে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করেছে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (যবিপ্রবি)। রোববার (২১ ফেব্রুয়ারি) প্রথম প্রহরে বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ, মঙ্গল প্রদীপ প্রজ্বালন, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, প্রভাতফেরিসহ নানা কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।

যথাযোগ্য মর্যাদায় দিবসটি পালনের জন্য শহিদ মিনারের পাদদেশে মনোজ্ঞ আল্পনা ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সীমানা প্রাচীরে ভাষা আন্দোলন স্মরণে দেয়ালচিত্র আঁকা হয়।

শনিবার (২০ ফেব্রুয়ারি) রাত নয়টায় অমর একুশের মূল কর্মসূচি শুরু হয় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে মঙ্গল প্রদীপ প্রজ্বালনের মাধ্যমে। এরপর একুশ নিয়ে শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তাগণ বিভিন্ন কবিতা, গান, নাটক ও প্ল্যানচেট বিতর্ক পরিবেশন করেন।

পরে ‘বঙ্গবন্ধু ও ভাষা আন্দোলন’বিষয়ে আয়োজন করা হয় সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভা। বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা দপ্তরের পরিচালক ড. মো: আলম হোসেনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য দেন যবিপ্রবির ডিনস কমিটির আহ্বায়ক ড. মো. নাসিম রেজা, রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মো. আহসান হাবীব, শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. মোহাম্মদ তোফায়েল আহমেদ ও সাধারণ সম্পাদক মো. আমজাদ হোসেন, কর্মকর্তা সমিতির সভাপতি ড. মো. আব্দুর রউফ, যবিপ্রবির ছাত্রলীগ নেতা আফিকুর রহমান অয়ন, সোহেল রানা প্রমুখ।

আলোচনা সভা ও অন্যান্য অনুষ্ঠান শেষে একুশের প্রথম প্রহরে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সাথে নিয়ে কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন যবিপ্রবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আনোয়ার হোসেন।

এদিকে, দিবসটি উপলক্ষে রোববার প্রত্যুষে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে কালো পতাকা উত্তোলন এবং জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতকরণ করা হয়। সকাল পৌনে সাতটায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা, কর্মচারীরা সম্মিলিতভাবে প্রভাতফেরি বের করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবন থেকে প্রভাতফেরিটি শুরু হয়ে শহিদ মিনারে গিয়ে শেষ হয়।

এদিন বাদ জোহর বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদে ভাষা শহিদদের আত্মার মাগফিরাত কামনায় বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।

চারিদিক/এম