বেগুন গাছের সাথে শত্রুতা !

অপরাধ ও আইন দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল

কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি।।

ঝিনাইদহ কালীগঞ্জের এক হতদরিদ্র কৃষকের ১০ শতক জমির ধরন্ত বেগুন ক্ষেত কেটে দিয়েছে দূর্বৃত্তরা। শনিবার রাতে কে বা কারা এই ক্ষেত কেটে দিয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার ষাইটবাড়িয়া গ্রামের মাঠে বাপ্পি মোল্লার ক্ষেতে। এতে ওই কৃষকের কমপক্ষে ৫০ হাজার টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করেছেন। তিনি ওই গ্রামের আনছার আলি মোল্যার ছেলে।

কৃষক বাপ্পি মোল্লা জানান, মাঠে তার মাত্র ১০ শতক জমি রয়েছে। অন্যের বাড়িতে কাজের পাশাপাশি নিজ জমিতে চাষাবাদ করে তার সংসার চলে। কয়েকমাস আগে একটি এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে শসার আবাদ করেছিলেন তিনি। বৃষ্টির কারণে শষা গাছ মরে যায়। পুনরায় প্রতিবেশীর কাছ থেকে টাকা ধার করে ওই জমিতে বেগুনের আবাদ করেছিলেন তিনি। আর কয়েকদিন পরই গাছে বেগুন ধরা শুরু করতো। রোববার সকালে নিজের জমির বেগুন গাছ কাটা দেখেন কিনি। ‘আমার শতত্রু কারা ? আর যারা এটা করেছে তাদেরই বা কি লাভ ?। এখন কি করে সারাবছর সংসার চালাবো আর কি করেই বা এনজিওর টাকাসহ ধারদেনা পরিশোধ করবো -এ কথা বলতে বলতে কাঁন্নায় ভেঙে পড়েন কৃষক বাপ্পি।

এ ব্যাপারে কালীগঞ্জ থানার ওসি মাহাফুজুর রহমান মিয়া বলেন, বাপ্পি মোল্লার বেগুন ক্ষেত কেটে দেয়ার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে  পুলিশ পাঠিয়েছিলাম। ওই কৃষক থানায় অভিযোগ দিলে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেয়া হবে।